রবিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১, ০২:৫১ পূর্বাহ্ন

ইরাক ও সিরিয়ায় ফের আক্রান্ত আমেরিকার কূটনীতিক ও সেনা বাহিনী

  • আপডেট সময় শুক্রবার, ৯ জুলাই, ২০২১
  • ১৫
US Embassy in Iraq

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: ইরাক ও সিরিয়ায় ফের আক্রান্ত আমেরিকার কূটনীতিক ও সেনা বাহিনীর সদস্যেরা। ইরাকি প্রশাসন আজ জানিয়েছেন, গত ২৪ ঘণ্টায় ইরাকের বিমান ঘাঁটিতে কমপক্ষে ১৪টি রকেট হামলা হয়েছে। জঙ্গিদের লক্ষ্য ছিল, আমেরিকান সেনা বাহিনীর সদস্যেরা। এই হামলায় দুই আমেরিকান সেনা আহত হয়েছেন। এখনও পর্যন্ত কেউ এই হামলার দায় স্বীকার না করলেও সন্দেহের তির সিরিয়া ও ইরাক সীমান্তে ঘাঁটি গেড়ে থাকা ইরানি মদতপুষ্ট জঙ্গি গোষ্ঠীগুলির দিকে।

সপ্তাহখানেক আগেই ইরানি মদতপুষ্ট এই সব জঙ্গি ঘাঁটিতে আকাশ পথে হামলা চালিয়েছিল আমেরিকার বিমান বাহিনী। তাতে চার জঙ্গির মৃত্যু হয়। গত কয়েক মাসে ইরাক ও সিরিয়ায় একাধিক বার আমেরিকান বাহিনীর উপরে হামলা চালায় জঙ্গি গোষ্ঠীগুলি। গত মাসে পাল্টা হামলা চালানোর পরে পেন্টাগনের তরফে জানানো হয়েছিল, ভবিষ্যতে প্রয়োজনে জঙ্গি ঘাঁটিগুলো লক্ষ্য করে ফের আকাশ পথে হামলা চালাবে আমেরিকার সেনা। তার মধ্যেই ফের আমেরিকার বাহিনীকে নিশানা করা হল।

পশ্চিম ইরাকের আইন আল-আসাদ ঘাঁটিতে আজ পর পর রকেট হামলা হয়। ইরাক-আমেরিকা জোট বাহিনীর মুখপাত্র কর্নেল ওয়েন মারোট্টো জানিয়েছেন, আহত দুই আমেরিকান সেনার অবস্থা স্থিতিশীল। একই সঙ্গে আজ হামলা হয়েছে ইরাকের রাজধানী বাগদাদের অতি সুরক্ষিত কূটনৈতিক এলাকা গ্রিন জ়োনেও। আমেরিকা-সহ বেশ কয়েকটি পশ্চিমী দেশের দূতাবাস রয়েছে সেখানে। তার মধ্যে আমেরিকান দূতাবাসকে নিশানা করেই আজ ভোরে দু’টি রকেট আছড়ে পড়ে। এই ঘটনায় অবশ্য হতাহতের কোনও খবর নেই। দূতাবাসের রকেট-বিধ্বংসী যন্ত্রের মাধ্যমে বড় ক্ষয়ক্ষতি এড়ানো গিয়েছে বলে জানিয়েছেন ইরাকি প্রশাসন।

ইরাকের পাশাপাশি সিরিয়াতেও আজ ড্রোনের মাধ্যমে নিশানা করা হয় আমেরিকান বাহিনীকে। পূর্ব সিরিয়ার আল ওমর তৈল ক্ষেত্রে আজ ওই হামলা হয়। ইরাক ও সিরিয়ার নিরাপত্তা আধিকারিকেরা জানিয়েছেন, সাম্প্রতিক কালে এই দুই দেশে আমেরিকান বাহিনীকে নিশানা করে রকেট হামলার ঘটনা নজিরবিহীন ভাবে বেড়েছে। শুধু আজকের হামলাই নয়, গত চার দিনে ইরাকের বিভিন্ন এলাকায় আমেরিকান বাহিনীর উপরে একাধিক হামলা হয়েছে। তবে কোনও ক্ষেত্রে প্রাণহানির ঘটনা ঘটেনি। আজকের হামলার পরে বাইডেন প্রশাসন ফের ইরাক-সিরিয়া সীমান্তে আকাশ পথে হামলা চালায় কি না, সেটাই দেখার।



Source by [সুন্দরবন]]

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও সংবাদ এই ক্যাটাগরি
সুন্দরবন টোয়েন্টিফোর ডট কম, সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত - ২০২১
Designer: Shimulツ
themesba-lates1749691102