বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ০১:৪৭ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
সারা খুলনা অঞ্চলের সব খবরা খবর মোংলায় ওমিক্রণ ভ্যারিয়েন্টের বিস্তাররােধে জনসচেতনতা সৃষ্টির জন্য মাইকিং শুরু বাগেরহাটে করোনার ভয়াবহতা রোধে জনসচেতনতার কার্যক্রম শুরু টিআই’র দুর্নীতি প্রতিবেদন পক্ষপাতদুষ্ট : ড. হাছান মাহমুদ প্রতারণার অভিযোগে মামলার মুখে গুগল প্রতিবন্ধী ব্যক্তি সমাজের বোঝা নয়- ইউএনও কূটনৈতিক সম্পর্কের সুবর্ণজয়ন্তীতে রাষ্ট্রপতি-প্রধানমন্ত্রীকে পুতিনের শুভেচ্ছা বাংলাদেশ টেক্সটাইল বিশ্ববিদ্যালয় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি ২০২২ নেইমারের বিপক্ষে খেলা বিশেষ কিছুঃ রোদ্রিগো – স্পোর্টস প্রতিদিন ইকুয়েডরের বিপক্ষে একাদশে থাকবে ভিনিসিয়াস কৌতিনহো – স্পোর্টস প্রতিদিন

মোংলায় জোরপূর্বক মৎস্য ঘেরের জমি ভরাটের অভিযোগ ওরিয়ন গ্রুপের বিরুদ্ধে

  • আপডেট সময় শুক্রবার, ৯ জুলাই, ২০২১
  • ২৬
মোংলায় জোরপূর্বক মৎস্য ঘেরের জমি ভরাটের অভিযোগ ওরিয়ন গ্রুপের বিরুদ্ধে

মোংলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি

মোংলায় অসহায় একটি পরিবারের এক একরেরও বেশি মৎস্য ঘেরে জমিতে জোরপূর্বক বালু ভরাট কওে দখলে নেয়ার চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠান ওরিয়ন গ্রুপের বিরুদ্ধে। ভুক্তভোগী পরিবারের অভিযোগ, সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণের কাজে ব্যবহারের জন্য ওই শিল্প প্রতিষ্ঠানটি তাদের মালিকানা জমিটুকু খরিদ না করে জোরপূর্বক দখল নেয়ার চেষ্টা করছে দীর্ঘদিন ধরেই। ওই প্রতিষ্ঠানটির হয়রানীর কবলে পড়ে হার্ডঅ্যাটাক করে মৃতু্যু হয়েছে তার স্বামীর। আর এখন তিনি আদালতে মামলা করেও নিজ জমি রক্ষা করতে পারছেন না। ন্যায় বিচার পেতে স্থানীয় প্রশাসনসহ প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চেয়েছেন ভুক্তভোগী জোছনা বেগম।

আদালতে দাখিলকৃত মামলা ও ভুক্তভোগীর অভিযোগে জানা যায়, মোংলার বিদ্যারবাহন মৌজায় এসএ ৪৪নং খতিয়ানে ওয়ারিশ, ক্রয় ও বায়না সূত্রে ১০৫ শতক জমির মালিক জোছনা বেগম। ওই জমির দুই পাশের কয়েক’শ একর জায়গা জুড়ে চলছে ওরিয়ন গ্রুপের সৌর বিদ্যুৎ প্লান্ট প্রকল্পের নির্মাণ কাজ। বিদ্যুৎ প্রকল্পের জন্য জোছনা বেগমের ওই জমি খরিদ করার চেষ্টা করে প্রতিষ্ঠানটি। কিন্তু দাম কম বলায় তা বিক্রি করতে রাজি হননি জোছনা বেগমের স্বামী জাহাঙ্গীর হোসেন। এরপর প্রতিষ্ঠনটি তাদেরকে ঘিরে শুরু করে নানা ধরণের হয়রানী। এক পর্যায়ে বিদ্যুৎ কেন্দ্র নির্মাণকারী প্রতিষ্ঠানের কয়েকজন ব্যক্তি ও জনৈক লিয়াকত হোসেনের নানা অত্যাচারে হার্ডঅ্যাটাক করে মারা যান জাহাঙ্গীর হোসেন। তারপর ওই সম্পত্তি আর মৎস্য ঘেরটি রক্ষায় জোছনা বেগম ও তার তিন সন্তান বাদী হয়ে বাগেরহাট সহকারী জজ আদালতে মামলা দায়ের করেন। এরমধ্যে জোছনা বেগমও অসুস্থ্য হয়ে পড়লে কৌশলে মৎস্য ঘেরটি রাতের অন্ধকারে বালু ফেলে ভরাট করে দখল নেয়ার চেষ্টা করে ওরিয়ন গ্রুপ। শুক্রবার সকালে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মৎস্য ঘেরের কিছু অংশ বালু ভরাট করা হয়েছে, বাকী জায়গা ভরাটের জন্য ওরিয়ন গ্রুপের ড্রেজারও সেখানে রয়েছে। চার বছর ধরে চুক্তিতে জমি লিজ নিয়ে সেখানে মাছ চাষ করে আসছেন স্থানীয় বাসিন্দা মো: মোস্তাইন মোল্লা। তিনি জানান, রাতের আধারে মৎস্য ঘেরে বালু ভরাট শুরু করে ওরিয়ন গ্রুপ। এরপর খবর পেয়ে তিনি সেখানে এসে বালু ভরাট বন্ধ করে দেন। ওই বালু ভরাটের ফলে তার কয়েক লাখ টাকার মাছ নষ্ট হয়েছে বলে দাবী করেন তিনি।

ভুক্তভোগী জোছনা বেগম বলেন, নায্য মূল্য দিলে তিনি ওই শিল্প প্রতিষ্ঠানকে জমি দিতে রাজি আছেন। কিন্তু প্রতিষ্ঠানের কয়েকজন দুর্নীতিবাজ কর্মকর্তা আর দালাল চক্র বিনামূল্যে তার জায়গাটি দখল নিতে চায়। নিজের মালিকানা জমি ও মৎস্য ঘেরটি রক্ষায় তিনিি প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চান।

এ বিষয়ে খোঁজ খবর জানতে ওরিয়ন গ্রুপের নির্মাণাধীন সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্পে গিয়ে পাওয়া যায় প্রতিষ্ঠানটির ল্যান্ড সুপারভাইজার মো: আফতাব উদ্দিনকে। তিনি বলেন, তাদের প্রতিষ্ঠান ওই জমিটি কয়েক বছর আগে জৈনক লিয়াকত হোসেনের কাছ থেকে বায়না রেজিষ্ট্রি করেছেন। লিয়াকত হোসেন মালিক না হয়ে কি করে জায়গাটি বিক্রি করার জন্য বায়না করেন এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, তাদের উর্ধতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে তারা বালু ভরাট করছেন।


Post Views:
6



Source by [সুন্দরবন]]

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরও সংবাদ এই ক্যাটাগরি

Recent Posts

সুন্দরবন টোয়েন্টিফোর ডট কম, সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত - ২০১৯-২০২২
Designer: Shimulツ
themesba-lates1749691102