মঙ্গলবার, ০৯ অগাস্ট ২০২২, ০৫:১৩ অপরাহ্ন

লাউয়ের গায়ে চিমটি কাটায় নিষেধাজ্ঞা চায় লাউ অধিকার সংরক্ষণ পরিষদ

  • আপডেট সময় রবিবার, ২২ আগস্ট, ২০২১

 

বছরের পর বছর ধরে লাউ সমাজের সাথে হয়ে আসছিলো এই অমানুসিক নির্যাতন। যে যেভাবে পারছে এসে চিমটি কেটে দিয়ে যাচ্ছে। এবার জেগে উঠেছে লাউ সমাজ৷ লাউদের অধিকার নিয়ে কাজ করা লাউ অধিকার সংরক্ষণ নামের একটি সংগঠন এমন অমানবিকতার অবসান চান। চিমটি কাটার উপর চান নিষেধাজ্ঞা৷

গতকাল করিম মিয়ার লাউ বাগানে অনুষ্ঠিত এক লাউসভায় সংগঠনটির কর্মীরা এইসব লাঞ্চনার কথা তুলে ধরার পাশাপাশি সমাধানও চেয়েছেন। বছরের পর বছর ধরে চলতে থাকা নির্যাতন সম্পর্কে বলতে গিয়ে এক জ্যেষ্ঠ লাউ বলেন, ‘বাজারে যাই ফ্রেশ ত্বক নিয়ে। ফিরে আসি শরীর ভর্তি নখের জখমের দাগ নিয়ে৷ মানুষগুলো আমাদের কিনলেও চিমটি কাটে না কিনলেও চিমটি কাটে৷ দেখে মনে হয়, এরা মানুষ না এক একটা ভীমরুল।’

প্রতিবাদে মুখর লাউ অধিকার পরিষদের এক তরুণ লাউ নেতা বজ্রকণ্ঠে মাইক ধরেন৷ মানুষদের বিরুদ্ধে হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে তিনি বলেন, ‘আমাদের বাপ-দাদারা যা সহ্য করে গেছে আমরা আর তা সহ্য করবো না। সময় এসে প্রতিটি চিমটি পাই পাই করে ফিরিয়ে দেয়ার। সাবধান হও মানুষ। আমাদের শরীরে তোমাদের নখের দাগের কসম, এই দাগ তোমাদের মুখের উপরও ফুটে উঠবে।’ 

চিমটি কাটায় শারীরিক ক্ষতি ছাড়াও নানাবিধ ক্ষতির সম্মুখীন হয়েছে লাউয়েরা৷ চিমটি কেটে চেহারা নষ্ট করে দেয়ার কারণে অনেকে ব্রেকাপ হয়ে গেছে। হতাশ হয়ে বেঁচে থাকার মোটিভেশন হারিয়ে ফেলা অনেকেই দোদুল্লমান দুখনের কাছে ধরনা দিচ্ছেন একটু মোটিভেশনের আশায়৷

লাউ অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের এই মহতি আন্দোলনে যোগ দিয়েছে মাটির হাঁড়ি, তরমুজ, ঢেঁড়শ সমাজও। তাদের উপর হওয়া থাপ্পড় ও মাথা ভেঙ্গে ফেলার মত অমানবিকতার সমাধান চান তারাও৷ 

এই পুরো আন্দোলনটিকে নৈতিক সমর্থন জানিয়ে বিএনপির পক্ষে একটি ফেক আইডি থেকে বিবৃতি দিয়েছেন মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর৷ অন্যদিকে অন্য একটি ফেক আইডি থেকে লাউ, মাটির হাঁড়ি ও ঢেঁড়শকে বিএনপির দোসর বলে দাবি করে হাসানোর জন্য বিখ্যাত হাসান মাহমুদ বলেন, ‘খবর নিলে দেখা যাবে এদের বাগানের মালিক সব বিএনপি করে। অসৎ উদ্দেশ্য নিয়ে এরা এইসব সবজিকে আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে লেলিয়ে দিয়েছে।’ 




Source by [সুন্দরবন]]

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরও সংবাদ এই ক্যাটাগরি
সুন্দরবন টোয়েন্টিফোর ডট কম, সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত - ২০১৯-২০২২
Designer:Shimul Hossain
themesba-lates1749691102