শুক্রবার, ১৯ অগাস্ট ২০২২, ০৭:২১ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম
চালের বস্তায় নিষিদ্ধ পলিব্যাগের ব্যাবহার ভ্রাম্যমাণ আদালতে দুই ব্যবসায়ীকে ৩০হাজার টাকা জরিমানা মেয়াদোত্তীর্ণ ইনজেকশন পুশ করায় রোগীর শরীরে জ্বালাযন্ত্রনা ফার্মেসী সিলগালা:পলাতক গ্রাম্য চিকিৎসক বাংলাদেশকে জানতে হলে আগে বঙ্গবন্ধুকে জানতে হবে ….এমপি মিলন সিরিজ বোমা হামলার প্রতিবাদে মোংলায় বিক্ষোভ মিছিল সারা খুলনা অঞ্চলের সব খবরা খবর নদীর পাড়ে শাড়ি পরে দুর্দান্ত ড্যান্স দিলো সুন্দরী যুবতী যুদ্ধের ধ্বংসস্তুপের উপর দাঁড়িয়েও বঙ্গবন্ধু প্রযুক্তি কাঠামো দাঁড় করিয়েছেন – মোস্তাফা জব্বার – টেক শহর বিশ্বকাপে পর্তুগালকে ফেবারিট মানছেন আর্জেন্টাইন তারকা – স্পোর্টস প্রতিদিন বিশ্ববাজারে আবারও কমল জ্বালানি তেলের দাম গর্তে লুকিয়ে থাকা ইঁদুরটি দেখলো চাষী ও তার স্ত্রী দুজনে মিলে

ক্ষীরার বাম্পার ফলনে খুশি মাগুরার চাষিরা | Adhunik Krishi Khamar

  • আপডেট সময় বুধবার, ৮ সেপ্টেম্বর, ২০২১
ক্ষীরা




ক্ষীরার বাম্পার ফলনে খুশি মাগুরার স্থানীয় চাষিরা। এবারের মৌসুমে আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় ও জমি চাষের উপযোগী হওয়ায় ক্ষীরার চাষ করে বেশ ভালো ফলন পেয়েছেন কৃষকরা। ভালো ফলনের পাশাপাশি বাজারে দাম ভালো পাওয়ায় হাঁসি ফুটেছে কৃষকের মুখে। লাভবান হলে আগামীতে আরও বেশি জমিতে ক্ষীরার চাষ করবেন চাষিরা।

জানা যায়, চলতি মৌসুমে জেলায় ক্ষিরার বাম্পার ফলন হয়েছে। প্রতিদিন সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত চলে এ অঞ্চলের উৎপাদিত শত শত টন ক্ষিরা বেচা-কেনা। ভালো দাম পাওয়ায় হাসি ফুটেছে এ অঞ্চলের কৃষকদের মুখে। মাগুরার চার উপজেলার উৎপাদিত ক্ষিরা স্থানীয় চাহিদা পূরণ করে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে পাঠানো হচ্ছে।

কৃষক আহাদ বলেন, প্রতি বিঘা জমি থেকে উৎপাদিত ক্ষিরা বিক্রি হচ্ছে ৩৫ থেকে ৪০ হাজার টাকা। ক্ষিরা চাষে পোকা-মাকড়ের ঝামেলা কম হওয়ায় অনেকটা নিশ্চিন্তেই এটি চাষ করা যায়। এ কারণে ক্ষিরা চাষে কৃষকের আগ্রহ দিন দিন বৃদ্ধি পাচ্ছে।

পাইকারি ব্যবসায়ী ঝন্টু শেখ জানান, অনেক সময় হাটে চাহিদার চেয়ে অনেক বেশি ক্ষিরা আমদানি হয়। তখন ওজনের পরিবর্তে বস্তা চুক্তিতে বিক্রি হয়। প্রকারভেদে প্রতি বস্তা (ছোট) ক্ষিরা বিক্রি হয় ৩০০ থেকে ৩৫ ০এবং বড় বস্তা ক্ষিরা বিক্রি হয় সাড়ে ৬০০ থেকে ৭০০ টাকা পর্যন্ত।

জেলার কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক সুশান্ত কুমার বলেন, চলতি মৌসুমে ৬৮০ হেক্টর জমিতে ক্ষিরা চাষ করেছেন কৃষকরা। এর মধ্যে সবচেয়ে বেশি চাষ হয়েছে সদর উপজেলায়। এ বছর ক্ষিরা চাষে ভালো ফলনের পাশাপাশি বেশ লাভবান হয়েছেন কৃষকরা। ক্ষীরা চাষে কৃষকদের উদ্বুদ্ধ করতে কাজ করে যাচ্ছে কৃষি বিভাগ।


আরও পড়ুনঃ রংপুরে জনপ্রিয়তা পাচ্ছে বস্তায় আদা চাষ, লাভবান হচ্ছেন চাষিরা


কৃষি প্রতিবেদন / আধুনিক কৃষি খামার









Source by [সুন্দরবন]]

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরও সংবাদ এই ক্যাটাগরি

Recent Posts

সুন্দরবন টোয়েন্টিফোর ডট কম, সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত - ২০১৯-২০২২
Designer:Shimul Hossain
themesba-lates1749691102